কুমিল্লার খবরজাতীয়

অ্যাটাক হেলিকপ্টারের সামনে কে এই সুন্দরী !

স্বমহিমায় রণমূর্তি হয়ে দাঁড়িয়ে আক্রমণকারী হেলিকপ্টার। তার ঠিক সামনে দাঁড়িয়ে অল্পবয়সী এক নারী। চোখে কালো সানগ্লাস, ঠোঁটে লিপস্টিক, গলায় রুচিশীল নীল মাফলার এবং মাস্ক। গায়ে মোড়ানো কালো জ্যাকেট, সুন্দর মুখশ্রী। ঠিক যেনো হলিউডের কোন মুভির মুখ্য চরিত্রে অভিনয়কারী নায়িকা!

কে তিনি? হ্যা, প্রথম দর্শনে এই প্রশ্নই উঁকি দেবে মনে। তিনি অবশ্য কোন নায়িকা নন। কিন্তু নায়িকার চেয়ে কোন অংশে কমও নন। জাতীয়, আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম সব জায়গায় এখন তাকে নিয়ে চর্চা।তার নাম ওজগি কারাবুলুত।

তুরস্কের অ্যাটাক হেলিকপ্টারের প্রথম নারী পাইলট হওয়ার রেকর্ড গড়েছেন কারাবুলুত। তার বয়স মাত্র ২৮ বছর। তুরস্কের রাজধানী আংকারায় প্রশিক্ষণ নেয়া শেষে তিনি এই রেকর্ড গড়েন।

তুরস্কভিত্তিক সংবাদ মাধ্যম ইয়েনি শাফাক জানিয়েছে, পুলিশ এভিয়েশন বিভাগের অধীনে কর্মরত কারাবুলুত ডেপুটি পাইলট কমিশনার পদে রয়েছেন। বলা হচ্ছে হেলিকপ্টার চালনার পরীক্ষায় পাশ করার সাফল্যের সাথে কারাবুলুত নতুন ইতিহাসও রচনা করলেন। পুলিশ বিভাগ তাদের বহরে অ্যাটাক হেলিকপ্টার অন্তর্ভুক্ত করার পর কারাবুলুত তার দায়িত্ব পালন শুরু করেছিলেন।

ডেইলি সাবাহ জানিয়েছে, কারাবুলুত ওই হেলিকপ্টারের ককপিটে বসে সাফল্যের সাথে ৯ সপ্তাহের প্রশিক্ষণ সম্পূর্ণ করেছেন। কারাবুলুত বলেন, আমি এর পাইলট হতে পেরে গর্ববোধ করছি।