বিনোদন

ধর্মের দিকে ঝুঁকে পড়লেন সুজানা ; শোবিজ ছাড়ার ঘোষণা

দেশের অন্যতম জনপ্রিয় মডেল ও অভিনেত্রী সুজানা জাফর ১৬ বছরের শোবিজে পথচলার ইতি টানলেন। এতদিন মিডিয়ায় সুনামের সঙ্গে কাজ করেও এভাবে বলে-কয়ে প্রস্থান নেওয়া যায়, সেটা জানা গেল তার মুখেই। দুবাই থেকে সুজানা জানালেন, তিনি মিডিয়াতে আর কাজ করবেন না। এখনই মিডিয়া থেকে বিদায় নেওয়ার উত্তম সময়।

সুজানা বলেন, বুটিক্স ব্যবসায় নিজেকে জড়িয়ে ও সমাজের ছিন্নমূল মানুষের জন্য কাজ করতে গিয়ে এমনিতেই মিডিয়ায় কম সময় দিয়েছি শেষ তিন বছর।

এর মধ্যে ২০১৮ সালের নভেম্বরে ওমরাহ্‌ হজ পালনের পর মিডিয়া থেকে মন আরও সরে যায়। এছাড়া গত তিন বছরে দু’একটি কাজ করতে গিয়ে দেখেছি, মিডিয়া অনেক পরিবর্তন হয়ে গেছে। সত্যি কথা বলতে প্রথমদিকে কাজের যেমন পরিবেশ ছিল এখন তেমনটা পাইনি।

আমার কাছে এখন মিডিয়া জায়গাটা কমফোর্টেবল না।  

মিডিয়া ছাড়ার জন্য কেউ বাধ্য করেনি জানিয়ে তিনি আরও বলেন, ছোটবেলা থেকেই নামাজ আদায় করতাম, কোরআন পড়তাম। এটা হয়তো অনেকের অজানা ছিল। করোনায় গত তিনমাসে হোম কোয়ারেন্টাইনে থেকে আমি কোরআন, হাদিস থেকে অনেক বেশি জ্ঞান নিয়েছি। সেসব জ্ঞান থেকে আমার মনে হয়েছে মিডিয়াতে আমার কাজ করা ঠিক না এবং মন থেকে কাজের উদ্দীপনা আসছে না।সেসব জ্ঞান থেকে আমার মনে হয়েছে মিডিয়াতে আমার কাজ করা ঠিক না এবং মন থেকে কাজের উদ্দীপনা আসছে না। গত ৩ মাসে কোরআন, হাদিস থেকে যা শিখেছি সেখান থেকে আমি বেশি শান্তি পেয়েছি, যা আগে কখনই পাইনি। এ কারণে আমার মন থেকে মিডিয়ায় কাজের ইচ্ছে নষ্ট হয়ে গেছে।  

মিডিয়া নিয়ে কোনও তিক্ত অভিজ্ঞতা না থাকলেও সুজানা তার ক্যারিয়ারের শুরুর আর এখনের সময়ের মধ্যে কিছু ব্যবধান উপলব্ধি করেছেন। তিনি বলেন, ১৬ বছর আগে যোগ্যতা দিয়ে কষ্ট করে যেভাবে কাজ হতো এখন ওই জিনিসটা আর দেখি না। এখন যোগাযোগ ও যোগ্যতার চেয়ে মানুষের সঙ্গে ব্যক্তিগত রিলেশন প্রাধান্য পাচ্ছে। যার সাথে যার রিলেশন তার সাথেই কাজে বেশি দেখা যায়। এটা একতরফা লাগে। আগের সেই পরিবেশ এখন নেই।

তিনি জীবনের এই পর্যায়ে এসে নিজের বুটিক্স ব্যবসা, ভবিষ্যত পরিকল্পনা ও বিয়ে নিয়ে বলতে গিয়ে জানান, আপাতত নিজেকে ব্যস্ত রেখেছি ব্যবসা ও সমাজের নানা কল্যাণে। কিছু আশ্রম ও অসহায় মানুষের দায়িত্ব নিয়েছি। আর জন্ম-মৃত্যু-বিয়ে এগুলো আল্লাহর হাতে। তার যখন হুকুম হবে আমার বিয়ে হবে। অবশ্যই বিষয়টি আমার পরিবার দেখবে। কিন্তু আমি মন থেকে চাই আমার যিনি জীবনসঙ্গী হবেন তিনি ইসলামিক মাইন্ডের একজন সৎ মানুষ হবেন।

এদিকে, আজ এই মডেল অভিনেত্রীর জন্মদিন। কিন্তু এবারের জন্মদিনে তিনি দেশে নেই। তিনি মূলত একটু ভিন্ন আঙ্গিকে নিজের জন্মদিন পালন করে থাকেন। দেশে থাকলে এই দিনটা সুজানা প্রতিবন্ধী ও অনাথ শিশুদের সাথে কাটান। তবে এবার তিনি দেশে না থাকলেও তাদের নিয়ে প্রতি বছরের মতো করা আয়োজন এবারও পরিকল্পনায় রেখেছেন। তিনি জানান, দেশে থাকলে বিশেষ এই দিনটাতে ওদেরও সময় দেই। এবারও ওদের জন্য মনটা খুব টানছে। তাই আমি দেশে না থাকলেও প্রতিবারের মতো এবারও আয়োজন রেখেছি।